প্রেম নৈব নৈব চঃ

জাগরণের পর মরণ না মরণের উত্তরণ জাগরণ - এই প্রশ্ন কুরুক্ষেত্রের যুদ্ধক্ষেত্রে দাড়িয়ে অর্জুন কি ভেবেছিল ?  সে নাহয় যাক অর্জুনের কথা, আপাতত এই সময় অর্জুনের বদলে অলীকের ভাবনা-চিন্তা ঠিক কোন গতিপ্রকৃতি ধরে হাঁটিহাঁটি করছে তাই দেখার। 
অলীক আজও সকালে ওয়াকে গেছে, নিত্যিকার হন্টনাভ্যাস। সাথে রং-বেরঙা পাতা-ফুল-লতা-গাছ আর বাকিগুলো নাহয় থাক। অলীক বড্ড লজ্জা পেয়ে যায়। ওর চোখ কি যে দেখে আর কি দেখে না তার হদিশ স্বয়ং কারিগরের কারিগরী।  এ-কদিনে পেয়ে বসেছে কালেকটিভ মাইন্ড বিষয়টায়। ভারী আজব - একদল বিজ্ঞানী বলছেন মরফোজেনেসিসের কথা। অর্থাৎ ফর্ম-এর জেনেসিস।
কি সহজ-জটিল তত্ব ! কেউ বলেন ফর্ম থেকে ফিল্ড আবার কেউ ফিল্ড থেকে ফর্ম। কোথায় যে যায় অলীক নিজেই বোঝেনা। শুধু বোঝে একটি ছোট্ট বাচ্চা দেখলে মন ভাল হয়, বাচ্চার সাথে কথা বললে মন ভাল থাকে ফর্ম বা ফিল্ড নির্বিশেষে। আবার একেকটি মানুষ দেখলেই রাগ হয় তার কারণ অলীক বহুবার ভেবেছে উত্তর পায়নি। 
 এই যে সকালের নির্দিষ্ট সময় অলীক পার্কে আসে তা আর কেউ জানুক স্বয়ং নিশ্চিত জানেন ! কোন গন্ধে কোন রূপে কোন ফুলে অলীকের ভেতরের দেবতা তুষ্ট হন তা অলীক নিজেও কিছুটা জেনে গেছে আর গন্ডগোল সেখানেই। জানতে জানতে জানোয়ার প্রবাদটা অলীকের বারবার মনে পড়ে যায় আর ভেতরের জন্তুটাকে শাসনে রাখার চেষ্টা চলে অনবরত ! হায় ঈশ্বর - কেন যে ফিল্ড-ফর্ম তৈরি করলে !
সকাল গড়িয়ে দুপুর। অলীক অফিসের চক্কর থেকে বেরোনোর তাল করে। ভুজুং-ভাজুং দিয়ে অফিস থেকে বেরুতে অলীকের জুড়ি নেই। কাজে মন বসতেই চায়না। আজ ফোন এসেছিল, তা বলে ভেবে বসবেননা গার্ল ফ্রেন্ড-এর। অলীকের কোনোও গার্ল তো দূরের কথা ফ্রেন্ডই নেই। কিকরেই বা থাকবে স্বপ্নের জগতে বাসযোগ্য বান্ধবী স্বপ্নের দোরগোড়াতেই হোঁচট খায়।
অলীক সেই ছেলেবেলায় চেষ্টা করেছিল মুনমুনের পিছু করার । নাহ্ সেটাও একরাশ বিরক্তিপূর্ণ ঝাড় দিয়ে শেষ হয়। সেই কনফিডেন্স হারানোর ভয় এখনোও মনের ভেতরে পুষে রেখেছে, আমরণ প্রতিজ্ঞা - প্রেম নৈব নৈব চঃ !
দুঃত্তেরি নানান কথায় ফোনের কথা ভুলেই মেরে দিয়েছে - ফোন এসেছিল সকালের সেই নীল আকাশের কাছ থেকে। হলুদ ফুলের কাছ থেকে। লাল পাতাবাহার ডাক দিয়েছে ভীষণ জোরে। স্বপ্নালু আবেগে ভাসতে ভাসতে অলীক পা রাখে মলে। চমক - নীল চুড়িদার ! সেই সকালের সেই হালকা হাসি।  অলীক পাশে-পাশে পা বাড়ায় ... 
কালেকটিভ মাইন্ড , মরফোজেনেসিস সব ধীরে-ধীরে ভেদ করে এগোতে থাকে দুজনে।
Post a Comment

Popular Posts